কওমি মাদরাসার সর্বোচ্চ স্তর দাওরায়ে হাদিসকে মাস্টার্স ডিগ্রির সমমান  দিয়ে একটি আইনের চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে সোমবার (১৩ আগস্ট) তেজগাঁওয়ে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে মন্ত্রিসভার বৈঠকে এ অনুমোদন দেয়া হয় বলে জানান মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম।

বৈঠক শেষে প্রেস ব্রিফিংয়ে তিনি বলেন, ‘কওমি মাদরাসাসমূহের দাওরায়ে হাদিস (তাকমিল) এর সনদকে মাস্টার্স ডিগ্রি (ইসলামিক স্ট্যাডিজ ও আরবি) সমমান প্রদান আইন, ২০১৮’ শীর্ষক আইনের খসড়ার নীতিগত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

গত বছরের ১১ এপ্রিল গণভবনের বাংলাদেশ শীর্ষ আলেমদের সামনে কওমি মাদরাসার স্বীকৃতি ঘোষণা করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এ ঘোষণার পর শিক্ষা মন্ত্রণালয় একটি প্রজ্ঞাপনও জারি করে। কিন্তু আলেমরা দীর্ঘ দিন ধরেই দাবি জানিয়ে আসছিরেন যেন আইনটি মন্ত্রিসভা ও সংসদে উত্থাপন করে পাশ হয়।

জানা যায়, প্রজ্ঞাপন জারির পর বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি) উচ্চপর্যায়ের আলেমদের সঙ্গে কয়েক দফা বৈঠক কর এ সংক্রান্ত আইনের খসড়া চূড়ান্ত করে।

ঘোষণার দেড় বছর পর আজ মন্ত্রিসভায় আলোচনার মাধ্যমে চূড়ান্ত হলো এ আইন।

আইনটির মাধ্যমে দাওরায়ে হাদিসের শিক্ষার্থীরা ইসলামিক স্টাডিজ ও আরবি সাহিত্য- এ দুই বিষয়ে মাস্টার্সের মর্যাদা পাবে।

প্রেস ব্রিফিংয়ে মন্ত্রীপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম বলেন, কওমি মাদরাসার ১৫ লাখ শিক্ষার্থীকে মূল ধারায় আনতে এ অাইন চূড়ান্ত অনুমোদন দেয়া হয়েছে। মাদরাসা থেকে অাগে যেসব সনদ দেয়া হয়েছে তা এই অাইনের অাওতায় গৃহিত হবে বলেও জানান তিনি।

Categories: Uncategorized

almanhalbd

জামিয়াতুল মানহাল আল কওমিয়া, ডিয়াবাড়ী, উত্তরা মডেল টাউন, ঢাকা

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।